বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ১২:৫১ অপরাহ্ন

মালয়েশিয়ায় নতুন প্রধানমন্ত্রী নির্বাচন করবেন রাজা আব্দুল্লাহ

  • আপডেট সময় বুধবার, ২৩ নভেম্বর, ২০২২, ৩.৪৩ এএম
  • ১০ বার পড়া হয়েছে

মালয়েশিয়ার রাজা আল-সুলতান আব্দুল্লাহ জানিয়েছেন, খুব শিগগিরই নিজের পছন্দ ও যোগ্য ব্যক্তিকে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নিয়োগ দেবেন তিনি। সরকার গঠনে রাজনৈতিক দলগুলো নিজেদের মধ্যে সমঝোতা করতে ব্যর্থ হওয়ার পর এ ব্যাপারে হস্তক্ষেপ করতে যাচ্ছেন দেশটির রাজা। খবর রয়টার্সের।

মালয়েশিয়ার বার্তাসংস্থা বেরনামা এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, নতুন প্রধানমন্ত্রী নির্বাচনের ব্যাপারে ন্যাশনাল প্যালেসের বাইরে উপস্থিত সাংবাদিকদের রাজা আব্দুল্লাহ বলেছেন, ‘আমাকে দ্রুত এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নিতে দিন। আমার সিদ্ধান্ত মেনে নেওয়ার জন্য সাধারণ মানুষের প্রতি আহ্বান জানাচ্ছি।’

গত শনিবার (১৯ নভেম্বর) মালয়েশিয়ার সংসদের নিম্নকক্ষ রাকিয়াতে সাধারণ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। কিন্তু এতে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করতে পারেনি কোনো জোট ও দল।

সংবিধান অনুযায়ী, সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জনকারী জোটের নেতা প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত হন। যেহেতু কোন জোট একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা পায়নি। ফলে প্রধানমন্ত্রী নির্বাচন ও সরকার গঠনের বিষয়টি ঝুলে যায়।

এ বিষয়টি সমাধান করতে দেশটির সংসদ নির্বাচনে অংশ নেওয়া তিন প্রধান জোট আনোয়ার ইব্রাহিমের পাকাতান হারাপান কোয়ালিশন, সাবেক প্রধানমন্ত্রী মুহিদ্দিন ইয়াসিনের পেরিকাতান ন্যাশনাল ব্লক ও বর্তমান প্রধানমন্ত্রী ইসমাইল সাবরি ইয়াকোবের বারিসান ন্যাশনাল কোয়ালিশন নিজেদের মধ্যে আলোচনা করে।

কিন্তু বর্তমান ক্ষমতাসীন বারিসান ন্যাশনাল কোয়ালিশন সরকার গঠনে অপর দুই জোটের একটিকেও সমর্থন দেবে না বলে জানায়। এরপরই ন্যাশনাল প্যালেসের পক্ষ থেকে খবর আসে, রাজনৈতিক দলগুলো নিজেদের মধ্যে সমঝোতা করতে ব্যর্থ হওয়ায় রাজা নিজের পছন্দের ব্যক্তিকে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে নিয়োগ দেবেন।

সংবিধানেই রয়েছে, যদি রাজনৈতিক দলগুলো সরকার গঠনে ব্যর্থ হয় তখন রাজা এতে হস্তক্ষেপ করবেন।

তবে রাজা আব্দুল্লাহ শেষ সুযোগ হিসেবে দলগুলোকে মঙ্গলবার স্থানীয় সময় দুপুর ২টা পর্যন্ত সময় বেধে দেন। এই সময়ের মধ্যে দলগুলোকে একটি সিদ্ধান্তে পৌঁছানোর আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

এদিকে মালয়েশিয়ার সংসদের মোট আসন সংখ্যা ২২২টি। সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করে সরকার গঠন করতে হলে বিজয়ী দল বা জোটকে অন্তত ১১২টি আসনে জয়ী হতে হবে।

শনিবার ভোটের ফলাফল বিশ্লেষণে দেখা গেছে, আনোয়ার ইব্রাহিমের পাকাতান হারাপান কোয়ালিশন ৮২টি, মুহিদ্দিন ইয়াসিনের পেরিকাতান ন্যাশনাল ব্লক ৭৩টি এবং ইসমাইল ইয়াকোবের বারিসান ন্যাশনাল কোয়ালিশন ৩০টি আসনে জয়ী হয়েছে। নির্বাচনে আনোয়ারের দল বেশি ভোট পেলেও অন্য কোনো জোট তার সঙ্গে যোগ দিতে না চাওয়ায় এখন আনোয়ার প্রধানমন্ত্রী হতে পারছেন না।

আনোয়ার এবং মুহিদ্দিন দুইজনই দাবি করেছেন সরকার গঠন করার মতো পর্যাপ্ত সমর্থন তাদের আছে। তবে কে কে তাদের সমর্থন দিচ্ছেন এটি খোলাসা করেননি তারা। মালয়েশিয়ার ন্যাশনাল প্যালেসের পক্ষ থেকে বিবৃতিতে বলা হয়েছে, আনোয়ার এবং মুহিদ্দিন দুইজনকেই কথা বলার জন্য ডেকেছেন রাজা।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2021 rudrabarta24.net
Theme Developed BY ThemesBazar.Com