রবিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৬:৫২ অপরাহ্ন

খানপুরে মমতাজ বেগম স্মরণে দোয়া

  • আপডেট সময় বুধবার, ৪ আগস্ট, ২০২১, ৪.৩২ এএম
  • ২৫ বার পড়া হয়েছে

রুদ্রবার্তা২৪.নেট: নারায়ণগঞ্জ পৌরসভার প্রয়াত চেয়ারম্যান আলী আহাম্মদ চুনকা’র সহধর্মিনী এবং নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশনের মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভীর মাতা মমতাজ বেগমের রূহের মাগফেরাত কামনায় খানপুরে দোয়া, মিলাদ ও কাঙালি ভোজের আয়োজন করা হয়েছে।
মঙ্গলবার (৩ আগস্ট) দুপুরে বাদ জোহর খানপুর পোলস্টার ক্লাব সংলগ্ন প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে খাবার বিতরণ করেন জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক একেএম আবু সুফিয়ান।
জেলা আওয়ামী লীগের কার্যকরী সদস্য ও খানপুর ইসলামী কাফেলা সাধারণ সম্পাদক সামসুজ্জামান ভাষানীর সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন পোলস্টার ক্লাবের সভাপতি ও নাসিক ১১নং ওয়ার্ড শ্রমিকলীগের সভাপতি আলমগীর কবির বকুল, পোলস্টার সিনিয়র সহসভাপতি আসাদুজ্জামান, হারুনুর রশিদ কাজল, কামরুজ্জামান, খানপুর ব্রাঞ্চ রোড পঞ্চায়েত কমিটির সভাপতি মোয়াজ্জেম হোসেন, জাহাঙ্গীর কবির পোকন, সাবেক সভাপতি আসলাম, সাবেক সভাপতি টিপু সুলতান, সাবেক সভাপতি মাসুম কবির, সাবেক সভাপতি লোকমান আহেম্মদ, সাধারণ সম্পাদক আরিফুর রহমান, নাসিক ১২নং ওয়ার্ড যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. জাভেদ ও স্থানীয় আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা।
সামসুজ্জামান ভাষানী বলেন, ‘প্রয়াত মমতাজ বেগমকে খালাম্মা বলতাম। পৌর পিতা আলী আহম্মদ চুনকা ভাইয়ের পেছনে তার অনেক অবদান ছিল। আওয়ামী লীগের শীর্ষ নেতা আমির হোসেন আমু ও তোফায়েল আহম্মেদসহ অনেক নেতা খালাম্মা হাতে রান্না খেয়েছেন। তিনি সমাজের অনেক মানুষকে সহযোগিতা করতেন। নারায়ণগঞ্জে কোনো মানুষ নেই, যিনি মমতাজ বেগমের বিরুদ্ধে একটি শব্দ বলতে পারবে।’
আবু সুফিয়ান বলেন, প্রয়াত মমতাজ বেগম কে আমি দুইটি রূপে বেশি দেখেছি। একটি হল তিনি হাতে তবজি নিয়ে আল্লাহকে স্মরণ করতেন। অন্যটি হলো, পরিবারের সদস্য ও মেহমানদের জন্য নিজ বাড়ির রান্না কাজে। তার বাসায় গেলে কেউ আপ্যায়ন ছাড়া, তিনি কখনো মানুষদের বিদায় দিতেন না। তার সততা, সাহস ও উৎসাহে তার মেয়ে ডা. সেলিনা হায়াৎ আইভী নারায়ণগঞ্জ পৌরসভার চেয়ারম্যান থেকে সিটি কর্পোরেশনের মেয়র নির্বাচিত হয়ে মানুষের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছে। তাই দুই ছেলে জেলা ও মহানগর যুবলীগ কমিটিতে গুরুত্বপূর্ণ পদে থেকে মানুষের জন্য কাজ করছেন। ছেলে-মেয়েদের নামে নেই কোনো অপরাধের ছোয়া। এমনকি তার দুই ছেলে রিপন ও উজ্জলকে চুনকা সাহেবের মত দেখেন মানুষ। রাজনীতি ও সমাজে তাদের কোনো চাদাঁবাজিতে নাম নেই। চুনকা সাহেব মৃত্যুর পরও পরিবারের সকল সন্তানদের বাবা মত উৎসাহ ও সাহস দিতেন প্রয়াত মমতাজ বেগম। খানপুর হলো মমতাজ বেগমের নানি বাড়ি। তাঁর মৃত্যুতে চুনকা সাহেবের পরিবারের প্রতি রইল শোক সমবেদনা।’

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2021 rudrabarta24.net
Theme Developed BY ThemesBazar.Com