বুধবার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২৩, ০৪:১২ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম ::
অভিবাসী প্রবেশ ঠেকাতে যুক্তরাজ্যের ভিসায় কড়াকড়ি আরোপ লাল বলে ফিরবেন বিশ্বকাপ জয়ী ম্যাক্সওয়েল তৃতীয়বার বিয়ে করতে যাচ্ছেন শুভশ্রীর বোন দেবশ্রী রোহিঙ্গা ক্যাম্পে যুবককে গুলি করে হত্যা স্বতন্ত্র প্রার্থীদের চাপ দিতে চায় না আ.লীগ: কাদের রূপগঞ্জে বসতঘরে আগুন দিয়ে গৃহবধূকে হত্যার ঘটনায় গ্রেপ্তার আট বন্দরে মুছাপুর ইউনিয়নের সফল চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মকসুদ হোসেনের নেত্রীত্বে ৩নং ওয়ার্ডে চলমান রয়েছে বিভিন্ন উন্নয়ন মূলক কাজ নারায়ণগঞ্জে ৩৮ প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ, বাতিল ৭ নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনে শামীম ওসমানসহ ৯ প্রার্থীর মনোনয়ন বৈধ বন্দরে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে হামলা, ভাঙচুর ও লুটপাট

চট্টগ্রামে আ.লীগ-বিএনপি সংঘর্ষ, কিশোর নিহত

  • আপডেট সময় শনিবার, ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২৩, ৪.০৪ এএম
  • ২১ বার পড়া হয়েছে

চট্টগ্রামের মিরসরাই উপজেলার আজমপুর বাজার এলাকায় আওয়ামী লীগ ও বিএনপি নেতাকর্মীদের মধ্যে সংঘর্ষে এক কিশোর নিহত হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসময় অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন।

শুক্রবার (২৯ সেপ্টেম্বর) বিকেল ৫টার দিকে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। জোরারগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. জাহিদ হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

নিহত কিশোরের নাম জাহিদ হোসেন রুমন (১৬)। তিনি উপজেলা ছাত্রলীগের কর্মী বলে দাবি করেছেন উপজেলা ছাত্রলীগের আহ্বায়ক মাসুদ করিম রানা।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, আগামী ৫ অক্টোবর বিএনপি কুমিল্লা থেকে চট্টগ্রাম অভিমুখে রোডমার্চ করবে। এ উপলক্ষে মিরসরাইয়ে পথসভার আয়োজন করে দলটি। এই পথসভার প্রস্তুতি উপলক্ষ্যে জোরারগঞ্জ আজমপুর বাজার এলাকায় বিএনপি নেতাকর্মীরা জড়ো হলে স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীদের সঙ্গে ওই দলটির নেতাকর্মীদের সংঘর্ষ শুরু হয়। প্রায় ঘণ্টাব্যাপী চলা সংঘর্ষে কমপক্ষে ২০ জন আহত হন।

জোরারগঞ্জ থানার ওসমানপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. শাহ আলম জানান, বিএনপি নেতা নুরুল আমিন চেয়ারম্যানের অনুসারীরা স্থানীয় আজমপুর বাজারে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের ওপর অতর্কিত হামলা চালায়। এতে কয়েকজন ছাত্রলীগ কর্মী আহত হন। এদের মধ্যে রুমন নামে এক ছাত্রলীগ কর্মীকে হাসপাতালে নেওয়া হলে চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

মিরসরাই উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটির সদস্য শাহিনুল ইসলাম স্বপন জানান, বিএনপির পূর্ব নির্ধারিত কর্মসূচি উপলক্ষ্যে প্রস্তুতি সভায় আওয়ামী লীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা হামলা চালিয়েছে। এতে বিএনপি, যুবদল ও ছাত্রদলের অন্তত ১৫ নেতাকর্মী আহত হয়েছেন।

জোরারগঞ্জ থানার ওসি মো. জাহিদ হোসেন জানান, পুলিশ ঘটনাস্থলে অবস্থান করছে। হতাহতের ঘটনায় জড়িতদের গ্রেপ্তারে পুলিশ অভিযানে রয়েছে। এ ব্যাপারে পরে বিস্তারিত জানানো হবে বলেও জানান ওসি।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2021 rudrabarta24.net
Theme Developed BY ThemesBazar.Com